1. admin@dailyoporadhonusondhanltd.net : admin :
শিরোনামঃ
র‌্যাব-৭,চট্রগ্রাম’র অভিযানে আলোচিত ও চাঞ্চল্যকর গণধর্ষণ মামলায় “যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত” আসামি মোঃ সুমন গ্রেফতার।  বাঘায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত এক ,গুরুতর আহত দুই। আমতলীতে হিরন হত্যা মামলার প্রধান আসামি নয়ন মৃধা গ্রেপ্তার  সাজেকে কাচালং নদীতে ফুল ভাসানোর মধ্য দিয়ে বিঝু উৎসবের সুচনা পুলিশি তৎপরতা ও আন্তরিক ভূমিকায় মানসিক ভারসাম্যহীন (পাগল) মহিলার বাচ্চা প্রসবে সহযোগিতা । ভোটারদের টাকা দিতে বাঁধা দেওয়ায় ছুরিকাঘাতে চেয়ারম্যান সমর্থককে হত্যা। শেরপুর পুলিশ লাইন্সে পবিত্র ঈদুল ফিতরের জামাত অনুষ্ঠিত শিকড় ঝিনাইগাতীর উদ্যোগে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প, ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন সেবক, কামরুজ্জামান (বাবলু কেন্দ্রীয় কৃষি ও সমবায় বিষয়ক উপ-কমিটির (সদস্য) জামালপুরের সানন্দবাড়ীতে অসকস বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ঈদ সামগ্রী উপহার হতদরিদ্রদের

বাঘাইছড়িতে পিসিপির সমাবেশ ও পরিবারের শ্রদ্ধাঞ্জলি।

  • আপডেট সময়ঃ মঙ্গলবার, ২৭ জুন, ২০২৩
  • ৩৪ জন দেখেছেন

রুপম চাকমা, বাঘাইছড়ি(রাঙ্গিমাটি):-আজ ২৭ জুন ২০২৩ ইং রোজ মঙ্গলবার সকাল ৯ টায় পরিরার ও এলাকাবাসীর পুষ্পমাল্য দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন এবং বাঘাইছড়ির বাঘাইহাটে পিসিপির বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

অগ্নিযুগের বীর রূপনের আত্মবলিদানে আমরা গৌরবান্বিত ২৭ জুন ‘৯৬ সালে কল্পনাকে উদ্ধারের কর্মসূচিতে নিখোঁজ সমর-সুকেশ-মনতোষের অবিলম্বে সন্ধান দান ও দুর্বৃত্তদের সাজা দাও এই শ্লোগানে পৃথক দুইটি মিছিল বাঘাইহাটে মিলিত হয়ে পিসিপি রাংগামাটি জেলা কমিটির উদ্যোগে বিক্ষোভ সমাবেশ করে।

সমাবেশে জেলা সাধারণ সম্পাদক তনুময় চাকমার সভাপতিত্বে সঞ্চালনা করেন জেলা দপ্তর সম্পাদক ঝিমিট চাকমা।

সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন আনন্দ চাকমা পিসিপির সহ সাধারণ সম্পাদক, এইচডব্লিউএফের জেলা সভাপতি রিমি চাকমা,পার্বত্য নারী সংঘের কেন্দ্রীয় সদস্য উজ্জ্বলা চাকমা এবং গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের সাজেক থানা শাখার সভাপতি নিউটন চাকমা প্রমূখ।

 

অন্যদিকে, কল্পনা চাকমাকে উদ্ধারে তোমরা হয়েছো গুম, দিয়েছো আত্মাহুতি যুগে যুগে মনে রাখবে লড়াইরত জুম্ম জাতি এই শ্লোগানে শহীদ রূপন চাকমা ও নিখোঁজ সমর-সুকেশ-মনতোষের উদ্দেশ্যে বাঘাইছড়ির রুপকারী স্কুল মাঠে নির্মিত বেদিতে পরিবার ও এলাকাবাসীর পক্ষে থেকে পুষ্পমাল্য দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন অংগত চাকমা এবং এলাকার মুরব্বী বিশ্বজিৎ চাকমা।

 

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ১৯৯৬ সালের ১২ জুন সেনা কমাণ্ডার লে. ফেরদৌস ও তার সহযোগীদের দ্বারা হিল উইমেন্স ফেডারেশনের নেত্রী কল্পনা চাকমাকে অপহরণের প্রতিবাদে ২৭ জুন সড়ক ও নৌপথ অবরোধ পালন করতে গিয়ে সেনা-পুলিশ-সেটলার-ভিডিপি কর্তৃক সমর, সুকেশ, মনোতোষ ও রূপন চাকমা হত্যা ও গুমের শিকার হয়েছিলেন। সরকার ২৭ বছরেও কল্পনা চাকমার অপহরণের যেমনি সুষ্ঠু তদন্ত, বিচার এবং দোষি ব্যক্তিদের শাস্তির ব্যবস্থা করেনি, একইভাবে সমর, সুকেশ, মনোতোষ ও রুপনের খুনীদেরও আইনের আওতায় আনা হয়নি।

 

বক্তারা আরো বলেন, শহীদের রক্ত কখনো বৃথা যেতে পারে না। কল্পনা চাকমার অপহরণের প্রতিবাদ করতে গিয়ে যারা নিজেকে আত্মোৎসর্গ করেছেন তারা পার্বত্য চট্টগ্রামের লড়াই-সংগ্রামের ইতিহাসে অমর হয়ে থাকবেন।

বক্তারা কল্পনা চাকমার চিহ্নিত অপহরণকারী লে. ফেরদৌসও তার দোসরদের বিচারসহ সমর, সুকেশ, মনোতোষ ও রূপন চাকমার খুনীদের বিচার ও শাস্তির দাবিতে এবং জুম্ম জাতির অস্তিত্ব রক্ষা ও মা-বোনের সুরক্ষায় লড়াইয়ে সামিল হওয়ার জন্য ছাত্র-যুব সমাজের প্রতি আহ্বান জানান।

শেয়ার করুন

আরো দেখুন......