1. admin@dailyoporadhonusondhanltd.net : admin :
শিরোনামঃ
র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম’র অভিযানে ভিকটিকে উদ্ধার ও এজাহার নামীয় প্রধান আসামি মোঃ মোস্তাফা কামালসহ আটক-০২ আমতলীতে যত্রতত্র গড়ে ওঠা ৪৫টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ। বদলগাছীতে ফায়ার সার্ভিস আসার পূর্বেই আগুন নিভাল গ্রামবাসী। সিডিএ’র নতুন চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ ইউনুছ টেপির বাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়ের নব গঠিত পরিচালনা  কমিটি গঠন।  চট্রগ্রাম,রিয়াজ উদ্দিন বাজার এর বিপরিতে, রাইফেল ক্লাব এলাকায় চার্জার ফ্যানের মূল্য বেশি,ফুলকলির মেয়াদ উত্তীর্ণ পণ্য থাকায় জরিমানা। বাঘায় কবি সাহিত্যিক পরিষদের ঈদ পুনর্মিলনী ও বাংলা নববর্ষ ১৪৩১ উদযাপন । কালাইয়ে আইন শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত স্থানীয় এমপি তার বন্ধু প্রার্থীর পক্ষ নেয়ায় নির্বাচন প্রভাবিত আশংকায় প্রার্থীতা প্রত্যাহার করলেন।   বটিয়াঘাটায় নারিকেল ফলনের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

অটোরিকশা-অটোটেম্পু শ্রমিকদের স্মারকলিপি পস্ মেশিনে অটোডাবল জরিমানা বাতিল করে জরিমানা সহনীয় করতে হবে

  • আপডেট সময়ঃ বুধবার, ১২ এপ্রিল, ২০২৩
  • ৫০ জন দেখেছেন

নিজস্ব প্রতিবেদক:- পস্ মেশিনে অটোডাবল জরিমান সিস্টেম বাতিল করে চালকদের সহনীয় পযার্য়ে জরিমানা করার দাবী জানিয়ে চট্টগ্রাম অটোরিকশা-অটোটেম্পু শ্রমিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ আজ বিকাল ৩টায় অতিরিক্ত পুলিশ কমিশানর ট্রাফিক ফয়সাল মাহমুদ এর বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।

স্মারকলিপি প্রদানকালে উপস্থিত ছিলেন অটোরিকশা-অটোটেম্পু শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ হারুনুর রশীদ, এ্যাসিস্টেন্ট সেক্রেটারী মো: ওমর ফারুক, কালামিয়া বাজার শাখার সেক্রেটারী মোহাম্মদ আকতারসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

স্মারকলিপিতে বলা হয়, সিএনজি চালিত অটোরিকশা গুলো কন্ট্রাক ক্যারিজ বা চুক্তি ভিত্তিক দৈনিক জমার ভিত্তিতে চলাচলের কারণে পুলিশের দেয়া মামলার সকল জরিমানা চালকদের বহন করতে হয়। তাই সড়ক পরিবহন আইন সংশোধন করে ছোট গাড়ির জরিমানার হার বর্তমানে এক চতুথার্ংশ নিধারণ করতে হবে। বিশেষ করে সিএনজি চালিত অটোরিকশার চালকদের মানবিক দিক বিবেচনা করে পস্ মেশিনের অটো ডাবল জরিমানা সিস্টেম বাতিল করে জরিমানা সহনীয় পযার্য়ে রাখার আহবান জানান।

স্মরকলিপিতে আরো বলেন, বর্তমান পরিস্থিতে দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতি, চালকের তুলনায় গাড়ী অনেক কম ফলে চালকদের দৈনন্দিন আয় থেকে মালিকের জমা ও গাড়ীর অন্যান্য খরচ বহন করে পরিবারের জন্য তেমনটা অর্থ থাকে না। চালকদের এমন দুর্ভিসহ সময়ে যত্রতত্র পুলিশী হয়রানী ও অটোডাবল সিস্টেম জরিমান বন্ধ রাখতে হবে।

স্মারলিপিতে আরো উল্লেখ করা হয়, একই দেশে তথা ঢাকা ও  চট্টগ্রামে দুই ধারায় ট্রাফিক পুলিশ প্রশাসন মামলা দিয়ে যাচ্ছে। যেমন নো পার্কিং মামলার জরিমানা ঢাকায় এক হাজার হলেও চট্টগ্রামে তা তিন হাজার। এভাবে প্রতিটি ক্ষেত্রে বৈষম্য মূলক আচরণের ফলে পরিবহন শ্রমিকরা অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে। নেতৃবৃন্দরা এসব অনিয়ম গুলো সঠিকভাবে পরিচালনা করে শ্রমিক বান্ধব ট্রাফিক গড়ে তোলার আহবান জানান।

 

 

 

শেয়ার করুন

আরো দেখুন......