1. admin@dailyoporadhonusondhanltd.net : admin :
শিরোনামঃ
বাগেরহাট ৪ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য বলইবুনিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন করেন। রান্নার কাজে ব্যস্ত মা, খেলতে গিয়ে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের নবনিযুক্ত চেয়ারম্যান অধ্যাপক রেজাউল করিম স্যারকে কেয়া’র পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন (দ্বিতীয় ধাপ) উপলক্ষে নির্বাচনকালীন দায়িত্ব পালন সংক্রান্তে ব্রিফিং কালাইয়ে চলতি মৌসুমে হিমাগারে আলুর ভাড়া বৃদ্ধির প্রতিবাদে চাষীদের মানববন্ধন রাজা তার নিজ বাড়ীতে খাবার খায় না দশ বছর। বদলগাছী ঐতিহাসিক পাহাড় পুর বৌদ্ধ বিহার আন্তজাতিক যাদুঘর দিবস পালিত। শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে গরুচোর চাক্রের ৫সদস্য গ্রেপ্তার আমতলীতে মহাসড়কের দু’পাশে গড়ে তোলা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ মুকসুদপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে শেষ মুহূর্তের প্রচার প্রচারণায় এগিয়ে আবুল কাশেম রাজের দোয়াত কলম মার্কা

বদলগাছী উপজেলার মিঠাপুর চকের মাঠে কৃষকের মুখে হাঁসি ফুটালেন নির্বাহী অফিসার।

  • আপডেট সময়ঃ বৃহস্পতিবার, ২৬ জানুয়ারী, ২০২৩
  • ৪৪ জন দেখেছেন

এনামুল কবীর এনাম বদলগাছী উপজেলা প্রতিনিধি নওগাঁ। 

নওগাঁ জেলার বদলগাছী উপজেলার মিঠাপুর ইউনিয়নের পাড়োরা মৌজার বকুল চেয়ারম্যানের ডিপ নামে পরিচিত, গভীর নলকূপটি  চালুর জন্য বরেন্দ্র থেকে অনুমোদন দেওয়ায় ২৫০ বিঘা জমির কৃষকের মুখে হাসি ফুটিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আলপনা ইয়াসমিন ।এলাকাবাসী সুএে জানা গেছে মিঠাপুর চকের মাঠের পাড়োরা মৌজার গভীর নলকূপটি জাতীয় পার্টির সরকার এরশাদের শাসনামলে সাবেক চেয়ারম্যান বকুল হোসেন এলাকার কৃষকের ভাগ্য বদলের জন্য প্রচেষ্টা চালিয়ে  স্হাপন করেছিল।

 

এর পর গভীর নলকূপটি পরবর্তী সরকারের নিয়ম নিতিতে বিক্রি হয়। নলকূপ টি ডিজেল চালিত ইঞ্জিন বেশি সমস্যার সমাধান না করিতে পারায়  বিক্রয় করেন। দীর্ঘ ১২ বছর যাবত ইরি বুড়ো ধান চাষ থেকে বঞ্চিত ছিল কৃষক ৭/৮ বছর ধরে অসহায় কৃষক।  ১০/১২ টি শ্যালো ইঞ্জিন দিয়ে  কিছু কিছু কৃষক অনেক কষ্ট করে  আবাদ করে। উক্ত গভীর নলকূপের আওতাধীন  কৃষকের  অসহায়ত্বের কথা সঠিক তদন্ত করে সাংবাদিক সংস্থা বদলগাছীর সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা  ওয়াজেদ আলী, ও  মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটি রাজশাহী বিভাগীয় সহ সভাপতি, দৈনিক ইনকিলাবের বদলগাছী উপজেলা প্রতিনিধি সাংবাদিক এনামুল কবীর এনাম এর যৌথ উপস্থাপনায় সঠিক যাচাই করেন ইউএনও ।এক ইঞ্চি ফসলি জমি  পরে থাকবেনা বর্তমান সরকারের ঘোষণা বাস্তবায়ন করার চেষ্টায়  ২৫০ বিঘা জমির অসহায় কৃষকে মুখে হাসি ফোঁটানোর জন্য গত ৫/০১/২৩ তারিখে ১৫ কেবি বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়ার  লিখিত লাইসেন্স প্রদান করেছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা খলিলুর রহমানের ছেলে হামিদুল ইসলাম কে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের এই মহত কাজের অনুমোদন দেওয়ায়  এলাকার কৃষকের মুখে হাসি খুশি লক্ষ্য করা যায়। কৃষক কালাম,আইজার,টুটুল  সাংবাদিকদের জানান ডিজেল মবেলের দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় শ্যালো ইঞ্জিন চালিয়ে ইরি বুড়ো ধান চাষ থেকে বঞ্চিত ছিলাম। দীর্ঘ বছর ধরে বন্ধ থাকার গভীর নলকূপে বিদ্যুৎ সংযোগের অনুমোদন দেওয়ায় আমরা আন্তরিক ভাবে খুশি।

স্হানীয় মেম্বার উজ্জ্বল হোসেন বলেন, দীর্ঘ দিন আমার চাচা সামাদ কবিরাজ চেষ্টা করে বিদ্যুৎ সংযোগ নিতে পারেনি ইউএনও স্যার এলাকার কৃষকের ভাগ্য বদলের সুযোগ করে দেওয়ার জন্য আমি স্যারকে ধন্যবাদ জানায়। মিঠাপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ফিরোজ হোসেনের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন এই ইউনিয়নের সবচেয়ে বড় মাঠ, দীর্ঘ বছর ধরে ইরিধানের ফসল উৎপাদন করতে পরেনি কৃষক, দুই জন সাংবাদিকের প্রচেষ্টায়  উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সঠিক সিদ্ধান্ত টি  শেখ হাসিনা সরকারের ঘোষণা কে বাস্তবায়ন করার জন্য স্যার কে ধন্যবাদ জানায়।

এবিষয়ে  উপজেলা নির্বাহী অফিসার আলপনা ইয়াসমিন  জানান মাননীয় সরকারের ঘোষণা কে বাস্তবায়ন করার জন্য দুই জন সাংবাদিকের সঠিক তথ্য কে গুরুত্ব দিয়ে ও কৃষকের ভাগ্য বদলের লক্ষে   এবং দেশের উন্নয়নে

কাজে অগ্রগতির জন্য লাইসেন্স প্রদান করেছি।

শেয়ার করুন

আরো দেখুন......